• বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১১:১৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
গণমাধ্যমকে দেশ ও জনগণের স্বার্থে দাঁড়াতে হবে -তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ঘূর্ণিঝড় রেমালের আঘাতে লন্ডভন্ড হয়ে গেছে কয়রা শেষ মুহূর্তে জমে উঠেছে প্রচার যুদ্ধ, চেয়ার দখলে দ্বিমুখী লড়াই ঠাকুরগাঁওয়ে কিশোর গ্যাংয়ের ৩ সদস্য গ্রেফতার নদী রক্ষার যুদ্ধে আমরা বিজয়ী হব-নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী গাড়িচালক মুকুলের পরিবারের মাঝে অর্থ ও খাদ্যসামগ্রী বিতরণ আজিজ ও বেনজীরের বিচার করলে হবে না; আশ্রয় দাতাদেরও বিচার করতে হবে পুলিশের মাদক বিরোধী অভিযানে ফেনসিডিলসহ ৩ মাদক ব্যবসায়ি গ্রেফতার ঠাকুরগাঁওয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে দুই ভাইয়ের মৃত্যু সংকোচ না করে আমাকে ডাকবেন, পরামর্শ দিবেন-এমপি সুজন

মদিনায় ভারি বৃষ্টি, রেড এলার্ট জারি

টাঙ্গন টাইমস ডেস্ক / ৩৯ Time View
Update : বুধবার, ১ মে, ২০২৪

সংযুক্ত আরব আমিরাত ও ওমানের পর সৌদি আরবেও দফায় দফায় বৃষ্টি হচ্ছে। এবার ভারি বৃষ্টিতে ভেসেছে মদিনা নগরী। গালফ নিউজ জানিয়েছে, বৃষ্টির পর কিছু এলাকায় আকস্মিক বন্যা দেখা দেয়। ভারী বৃষ্টিতে ভিজেছে পবিত্র নগরী মদিনার মসজিদে নববী। নগরীতে মদিনায় রেড অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে।

সৌদির জাতীয় আবহাওয়া কেন্দ্রের বরাত দিয়ে গালফ নিউজ জানিয়েছে, মদিনার জন্য সর্বোচ্চ রেড এলার্ট জারি করেছে সংস্থাটি। মদিনায় আরও বজ্রসহ বৃষ্টি এবং ঝড়ো হাওয়া বইয়ে যাবে বলে জানানো হয়েছে। মদিনার সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তর সাধারণ মানুষকে সতর্ক থাকার অনুরোধ করেছে।

সৌদি আবহাওয়া কেন্দ্র জানিয়েছে, মদিনার আল ইসে সবচেয়ে বেশি বৃষ্টি হয়েছে। বৃষ্টির পানিতে উপত্যকা এবং বিভিন্ন প্রাচীরে পানি উপচে পড়েছে। এছাড়া বৃষ্টির পানির কারণে সৃষ্ট বন্যায় অনেক রাস্তায়ও গাড়ি ডুবে গেছে। এতে অনেক সড়ক বন্ধের পাশাপাশি বিভিন্ন অবকাঠামো ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

অনেক জায়গায় সাধারণ মানুষের গাড়ি ডুবে গেছে, অনেক জায়গায় রাস্তা বন্ধ হয়ে গেছে এবং অবকাঠামো ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বৃষ্টিতে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষকে সহায়তায় জরুরি সেবার কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা তাৎক্ষণিকভাবে কাজ শুরু করেছেন। সেই সঙ্গে উপত্যকা এবং জলধারাগুলো থেকে দূরে থাকার আহবান জানিয়েছে।

সোমবারের বৃষ্টিতে ভিজেছে মদিনার মসজিদে নববী। সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া বিভিন্ন ভিডিওতে দেখা গেছে, মসজিদে নববীতে বৃষ্টিতে ভিজে আনন্দ করছে শিশুরা। বৃষ্টি এতই বেশি ছিল যে মসজিদটিতে যে ছাউনি আছে সেগুলো বেয়ে বেয়ে সজোরে পানি নিচে নেমে আসে।

এর আগে সৌদি আরবের দক্ষিণ-পূর্বের প্রতিবেশী আরব আমিরাত এবং ওমানে টানা বৃষ্টিতে আকস্মিক বন্যার সৃষ্টি হয়েছিল। এর কয়েকদিন পর সৌদিতে ভারী বর্ষণ ও বন্যা দেখা দেয়। এই সময়ে আরব দেশগুলোতে এ ধরনের আকস্মিক বন্যাকে একটি বিরল ঘটনা বলা যেতে পারে।

উপসাগরীয় দেশগুলোর বেশিরভাগ শহর বৃষ্টির পানি নিষ্কাশনের পর্যাপ্ত ব্যবস্থা ছাড়াই নির্মিত হয়েছিল। কারণ ২০ শতকের নগর পরিকল্পনাবিদরা আরব উপদ্বীপের মত শুষ্ক ভূখণ্ডে জলবায়ুর এমন নাটকীয় পরিবর্তনের প্রত্যাশা করেননি। ফলে মাঝারি বৃষ্টি হলেও পানিতে প্লাবিত হচ্ছে দেশগুলোর বিভিন্ন নগরী।

আরএম/ টাঙ্গন টাইমস


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
https://slotbet.online/